ব্রেকিং নিউজ
Home / জাতীয় / ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ: জেলেদের জন্য সাড়ে ১০ হাজার টন চাল বরাদ্দ

২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ: জেলেদের জন্য সাড়ে ১০ হাজার টন চাল বরাদ্দ

Spread the love

আগামী ১৪ অক্টোবর থেকে ৪ নভেম্বর ২২ দিন ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ করেছে সরকার। এ সময় খাদ্য নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে জেলেদের জন্য ১০ হাজার ৫৬৭ মেট্রিক টন ভিজিএফ চাল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। এ বছর ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুমের মোট ২২ দিন সারাদেশে ইলিশ মাছ আহরণ, পরিবহণ, মজুদ, বাজারজাতকরণ, ক্রয়-বিক্রয় ও বিনিময় নিষিদ্ধ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়।

গত ৩০ সেপ্টেম্বর সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসকদের অনুকূলে এ সংক্রান্ত মঞ্জুরি জ্ঞাপন করেছে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়। একইসাথে উল্লিখিত ভিজিএফ চাল এর পরিবহণ ব্যয়ও সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসকদের অনুকূলে মঞ্জুরি জ্ঞাপন করা হয়েছে। ভিজিএফ চাল ৩০ অক্টোবর ২০২০ তারিখের মধ্যে উত্তোলন ও সংশ্লিষ্টদের মাঝে বিতরণ সম্পন্ন করার জন্য জেলা প্রশাসকদের নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে। ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুমে মা ইলিশ আহরণে বিরত থাকা নিবন্ধিত ও প্রকৃত জেলেদের মধ্যে এ ভিজিএফ বিতরণ নিশ্চিত করার জন্য বরাদ্দপত্রে নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে।

এ সময়ে জেলেদের জন্য মানবিক খাদ্য সহায়তা কর্মসূচির আওতায় ১০ হাজার ৫৬৬.৮৪ মেট্রিক টন ভিজিএফ চাল বরাদ্দ করা হয়েছে। এর আওতায় ৩৬টি জেলার ১৫২টি উপজেলায় মা ইলিশ আহরণে বিরত রাখতে তালিকাভূক্ত ৫ লাখ ২৮ হাজার ৩৪২টি জেলে পরিবারের জন্য ২০ কেজি হারে ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুম শুরুর পূর্বেই এ বরাদ্দ প্রদান করা হয়েছে। এ মৌসুমে গত মৌসুমের তুলনায় অতিরিক্ত ১ লাখ ২০ হাজার ২৬৩টি জেলে পরিবারকে এ খাদ্য সহায়তা দেয়া হচ্ছে।