Home / শিক্ষা / ডুয়েটের যোগ্য শিক্ষকদের থেকেই ভিসি চায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৫ সংগঠন

ডুয়েটের যোগ্য শিক্ষকদের থেকেই ভিসি চায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৫ সংগঠন

Spread the love

ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (ডুয়েট) কর্মরত শিক্ষকদের মধ্য থেকেই নতুন ভিসি চায় বিশ্ববিদ্যালয়ে কো-কারিকুলার এক্টিভিটিসে জড়িত ১৫ টি সংগঠন।

শুক্রবার (৪ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৫ টি সংগঠনের সমন্নিত ভার্চুয়াল আলোচনায় এই দাবী জানানো হয়। ভিসি নিয়োগের ক্ষেত্রে জ্যেষ্ঠতা নয় বরং যোগ্যতার ভিত্তিতে ডুয়েট পাশকৃত শিক্ষকদের অধিক প্রাধান্য দেওয়ার অনুরোধ জানান তারা।

উক্ত আলোচনায় অংশ নেওয়া সংগঠন গুলো হলো, ডুয়েট সাংবাদিক সমিতি (ডুয়েটসাস); ডুয়েট ক্যারিয়ার এন্ড রিসার্স ক্লাব; ডুয়েট সিআর ফোরাম; ডুয়েটের সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন “সৃজনী”; ডুয়েট রোবটিক্স ক্লাব; ডুয়েট স্পোর্টস ক্লাব; ইন্সটিটিউট অব ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারস; আমেরিকান সোসাইটি অব সিভিল ইঞ্জিনিয়ারস; ডুয়েট ডিবেটিং সোসাইটি; ডুয়েট কম্পিউটার সোসাইটি; ডুয়েট ইনোভেশন সোসাইটি; ইংলিশ ল্যাংগুয়েজ ক্লাব – ডুয়েট; ডুয়েট ফটোগ্রাফি এন্ড টুরিস্ট সোসাইটি; ডুয়েট সাহিত্য সংসদ ও স্থাপত্যের দুয়ার।

আলোচনায় সংগঠন সমূহের দায়িত্বশীল প্রতিনিধিরা বলেন, ”প্রকৌশল শিক্ষা অঙ্গনে ডুয়েট একটি স্বনামধন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে সমধিক পরিচিত। প্রতিষ্ঠালগ্ন হতেই দেশ ও জাতির উন্নয়নে ডুয়েটের প্রকৌশল শিক্ষাবিদগণ গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে যাচ্ছে। তাই, অন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নয় বরং ডুয়েটে কর্মরত যোগ্য শিক্ষকদের মধ্য হতেই নতুন ভিসি নিয়োগ দিতে হবে”।

তারা আরও বলেন, “অন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের কোন শিক্ষককে ভিসি হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হলে বিশ্ববিদ্যালয়ের চলমান ভারসাম্যতা নষ্ট হবে। শিক্ষকদের মধ্যেও বিভাজন সৃষ্টি হতে পারে যা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামগ্রিক উন্নয়ন কে বাধাগ্রস্থ করবে”। শিক্ষার্থীদের চলমান সমস্যা গুলো অনুধাবন করে যথাযথ সমাধান করা, জাতীয় ও বৈশ্বিক পর্যায়ে ডুয়েটের অবস্থান আরো দৃঢ় করা, ডুয়েট কে গবেষণাবান্ধব বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে গড়ে তুলতে গবেষণা খাতে বাজেট বৃদ্ধি করা এবং চলমান অবকাঠামোগত উন্নয়ন কে আরো গতিশীল করতে ডুয়েটের যোগ্য শিক্ষকদের মধ্য হতেই নতুন ভিসি নিয়োগ দেওয়া জরুরী মনে করেন সংগঠনের দায়িত্বশীল শিক্ষার্থীগণ।

উল্লেখ্য, গত ২৮ আগস্ট ডুয়েটের ভিসি হিসেবে অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আলাউদ্দিন এর দ্বিতীয় পর্যায়ের মেয়াদ শেষ হওয়ায় ভিসি পদে শূন্যতার সৃষ্টি হয়।